Monday, 14 June, 2021 খ্রীষ্টাব্দ | ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ |




সবসময় এলাকার মানুষের কল্যাণে কাজ করেছি — এড. ইকবাল

বিয়ানীবাজারবার্তা২৪.কম।।

আসন্ন গোলাপগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে, চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী, উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান এডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরীর সমর্থনে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রবিবার সন্ধ্যায় হেতিমগঞ্জের একটি অভিজাত কমিউনিটি সেন্টারে ৩নং ফুলবাড়ি, ১নং বাঘা ও লক্ষ্মীপাশা ইউনিয়নের সর্বদলীয় জনসাধারণের উদ্যোগে এই মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।



সভায় সভাপতিত্ব করেন লক্ষীপাশা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান কবির আহমদ মুসন। সভায় অনুভূতি ব্যক্তকালে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী এডভোকেট ইকবাল আহমদ চোধুরী বলেন, সবসময় আমার এলাকার মানুষের কল্যাণে কাজ করেছি। চেষ্টা করেছি সুখে-দুঃখে সবার পাশে থাকার জন্য। আপনারাই আমার আপনজন। জীবনের শেষ সময়টুকু মানুষের কল্যাণে কাটাতে চাই।



আগেও আপনাদের ভালোবাসায় আমি সিক্ত হয়েছি। যথেষ্ট অনিচ্ছা থাকা সত্ত্বেও দল আমাকে আবার প্রার্থী হিসেবে মনোনীত করেছে। পূর্বেকার মত আমাকে নির্বাচিত করে জনগণের উপজেলাবাসীর খেদমত করার সুযোগ দিবেন বলে আমি বিশ্বাস করি।



মতবিনিময় সভায় সর্বস্তরের জনগণ অংশগ্রহণ করেন। জনসাধারণের পক্ষ থেকে এডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরীকে উপজেলার অভিভাবক ও কা-রী হিসেবে উল্লেখ করা হয়। এসময় এলাকার বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ বলেন, ইকবাল আহমদ চৌধুরী কোনো দলের প্রার্থী নন, গোলাপগঞ্জ উপজেলার সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধেয় ও প্রিয়জন তিনি। দলমত নির্বিশেষে তিনি মানুষের পাশে দাঁড়ান।



এলাকার উন্নয়নের স্বার্থে ইকবাল আহমদ চৌধুরীকে নির্বাচিত করা সকলের নৈতিক দায়িত্ব ও কর্তব্য। ইকবাল আহমদ চৌধুরীকে বিজয়ী করার জন্য সর্বস্তরের জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে। এসময় এলাকার বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ ইকবাল আহমদ চৌধুরীকে বিজয়ী করতে যুবসমাজকে ভূমিকা রাখার জন্য আহবান জানান।



এছাড়া ৩নং ফুলবাড়ি, ১নং বাঘা ও লক্ষ্মীপাশা ইউনিয়নের সর্বস্তরের জনগণ প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মাওলানা রশীদ আহমদকে উপজেলার উন্নয়নের বৃহত্তর স্বার্থে প্রার্থীতা প্রত্যাহার করার অনুরোধ জানান। সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী সমাজসেবক এলিন চৌধুরী। তিনি বলেন, আমার বড় ভাই ইকবাল আহমদ চৌধুরী খুব অল্পসময়ের ব্যবধানে তাঁর স্ত্রী, দুই সন্তান হারিয়েছেন। এলাকার মানুষরাই তাঁর আপনজন। সারাজীবন তিনি মানুষের কল্যাণে কাজ করেছেন। জনগণের সেবা করেই তিনি বাকি জীবনটা কাটাতে চান।



আমার প্রত্যাশা আপনারা তাঁর ভালোবাসার মূল্য দেবেন। বিগত সময়ে জনপ্রতিনিধি থাকাকালে এলাকার ব্যাপক উন্নয়ন করেছেন উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমার বড় ভাইকে আপনারা সৎ মানুষ হিসেবে জানেন। এলাকার বৃহত্তর উন্নয়নের স্বার্থে তাঁকে আবারো নির্বাচিত করুন। এর মাধ্যমে একজন বয়োজ্যেষ্ঠ ব্যক্তির প্রতি যথাযথ শ্রদ্ধা প্রদর্শন হবে।



মতবিনিময় সভায় এডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরীকে সমর্থন জানিয়ে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন প্রবীণ মুরব্বি গোলাম আজম শায়েস্তা, বেলাল আহমদ, সেবুল আহমদ, আনা মিয়া, গুলজার আহমদ, ছালিক মেম্বার, নুরুল আলম, নূরুল মেম্বার, সেলিম আহমদ, মখলিস মিয়া, খোকন মিয়া, লকুছ মিয়া, আশফাক আহমদ, আলী আকবর ফখর, রেজা মেম্বার, গণি, হেলাল, সিরাজ, মশাহিদ আলী, আবুল হোসেন,

আব্দুল মালেক, মসলু মিয়া, রুহেল আহমদ, সেলিম মেম্বার, সোনা মিয়া, মাহতাব উদ্দিন, রহিম মেম্বার, মজলু মিয়া, হানিফ মিয়া, দুদু মিয়া, সুজন খান, জামাল উদ্দিন, শামসুল ইসলাম সেলিম আহমদ, জাফরান জামিল, মুজিবুর রহমান প্রমুখ। সভার শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন আব্দুল আহাদ। মতবিনিময় সভা যৌথভাবে সঞ্চালনায় করেন আলাউদ্দিন ও মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ।



উল্লেখ্য, এডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরী সিলেটের একজন গুণি ব্যক্তিত্ব। সিলেটে শিক্ষা বিস্তারে তার রয়েছে অনন্য অবদান। এছাড়া সামাজিক-সাংস্কৃতিক ক্ষেত্রে তিনি রেখে যাচ্ছেন উল্লেখযোগ্য ভূমিকা।



রাজনৈতিক অঙ্গনে সজ্জন ব্যক্তি হিসেবে পরিচিত এডভোকেট ইকবাল আহমদ চৌধুরী গোলাপগঞ্জ উপজেলার পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবেও দায়িত্ব পালন করছেন।

 

 

 

 



 


















 










 

Developed by :