Saturday, 4 February, 2023 খ্রীষ্টাব্দ | ২২ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |




বড়লেখা পৌর নির্বাচনে শেষ হাসি কার?

এ.জে লাভলু, বড়লেখা: রাত পোহালেই বড়লেখা পৌরসভার নির্বাচন। মেয়র-কাউন্সিলর প্রার্থীরা ভোটের দিনের জন   শেষ প্রস্তুতি নিচ্ছেন। নির্বাচনে মেয়র পদে লড়ছেন তিনজন। আর কাউন্সিলর পদে ২৬ জন ও নারী কাউন্সিলর পদে ১১ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

নির্বাচনে মেয়র পদে লড়ছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আবুল ইমাম মো. কামরান চৌধুরী (নৌকা), বিএনপি মনোনীত প্রার্থী আনোয়ারুল ইসলাম(ধানের শীষ) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী সাইদুল ইসলাম (মোবাইল ফোন)।  তবে মেয়র প্রর্থীদের মধ্যে শেষপর্যন্ত কে হাসছেন শেষ হাসি তা নিয়ে সাধারণ ভোটারদের মাঝে চলছে নানা হিসেবে-নিকেশ।

রোববার দুপুরে পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ড ঘুরে অনন্ত ২০জন ভোটারের সাথে কথা হয় এ প্রতিবেদকের। তারা বলেছেন, যে পৌর এলাকার উন্নয়নে কাজ করবে তারা তাকেই পৌর মেয়র হিসেবে বেছে নেবেন।

উপজেলা নির্বাচন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, প্রথম ধাপে আগামী ২৮ ডিসেম্বর ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) মাধ্যমে বড়লেখা পৌরসভার ভোট গ্রহণ হচ্ছে। নির্বাচন উপলক্ষে সবধরনের প্রস্তুতি নিয়েছে প্রশাসন। এসব কেন্দ্রে নির্বাচনী সরঞ্জাম পৌঁছানোর পাশাপাশি নিরাপত্তা ব্যবস্থাও জোরদার করা হয়েছে।  বড়লেখা পৌরসভার নয়টি ওয়ার্ডে মোট ভোটার ১৫ হাজার ৪৪৩ জন। এরমধ্যে পুরুষ ভোটার ৭ হাজার ৫২৩ জন ও মহিলা ভোটার হলেন ৭ হাজার ৯২০ জন। নয়টি সাধারণ ও তিনটি সংরক্ষিত ওয়ার্ডের ভোট গ্রহণের জন্যে ১০ টি ভোটকেন্দ্র এবং ৪৩টি ভোটকক্ষ রয়েছে।

উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সহকারি রির্টার্নিং কর্মকর্তা সাদিকুর রহমান রোববার (২৭ ডিসেম্বর) বিকেলে বলেন, বড়লেখায় প্রথমবারের মতো ইভিএমে ভোটগ্রহণ হচ্ছে। বড়লেখা পৌরসভার ১০টি ভোটকেন্দ্রে ৪৫টি বুথে ভোটগ্রহণ হবে। এসব কেন্দ্রে ভোটার সরঞ্জাম পাঠানো হয়েছে। তিনি বলেন, নির্বাচনের দিন ১০টি ভোটকেন্দ্রে ১০ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট দায়িত্ব পালন করবেন।

এছাড়া আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় দুই প্লাটুন বিজিবি ছাড়াও মাঠে র‌্যাব, পুলিশ ও আনসার বাহিনীর সদস্যরা কাজ করবেন। অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষভাবে ভোটগ্রহণের লক্ষ্যে সবধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। আশা করছি ভোটাররা নির্বিঘ্নে ভোট দিতে আসবেন।

 

সর্বশেষ সংবাদ

Developed by :