Monday, 28 September, 2020 খ্রীষ্টাব্দ | ১৩ আশ্বিন ১৪২৭ বঙ্গাব্দ |




বিয়ানীবাজারে কোয়াব’র ক্রিকেট প্রশিক্ষণের উদ্বোধন, অংশ নিচ্ছেন তিন উপজেলার ৬০ জন

বিয়ানীবাজারবার্তা২৪.কম:  জেলা শহর সিলেটে উন্নতমানের প্রশিক্ষণের সুযোগ নেই। নেই বিশেষজ্ঞ কোচ। ইচ্ছে থাকা স্বত্বেও অনুশীলনের যেতে পারেন না এই উপজেলার ক্ষুদে ক্রিকেটাররা। তাই অনেক প্রতিভাবান ক্রিকেটারের স্বপ্নের সীমাবদ্ধতা উপজেলা পর্যায় পর্যন্ত। তবে বিয়ানীবাজারের চিত্রটা এখন ব্যতিক্রম।

উন্নত অনুশীলনের জন্য শহরে ছুঁটতে হবে না জেলা শহরে, নিজেদের উপজেলায় বিশেষজ্ঞ কোচের অধীনে অনুশীলন করার সুযোগ পাচ্ছেন ৬০ জন কিশোর-তরুণ ক্রিকেটার। আর এজন্য তাদেরকে কোনো ফি’ও (মাসিক বেতন) দিতে হচ্ছে না। ক্রিকেটার্স ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (কোয়াব) বিয়ানীবাজার উপজেলা শাখার সার্বিক ব্যবস্হাপনায় বিনামূল্যে তাদেরকে প্রশিক্ষণের সুযোগ করে দিচ্ছে।

মাশরাফি, সাকিব মুস্তাফিজের উত্তরসূরী তৈরির লক্ষ্য নিয়ে বিয়ানীবাজার উপজেলায় দ্বিতীয় বারের আনুষ্ঠিক যাত্রা শুরু করল কোয়াব বিয়ানীবাজার ক্রিকেট একাডেমী।

গত সোমবার বিকেলে পিএইচজি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে কোয়াব বিয়ানীবাজার ক্রিকেট একাডেমীর আহবায়ক এনাম উদ্দিনের সভাপতিত্বে ও কোয়াব বিয়ানীবাজার উপজেলা শাখার সহ সাধারণ সম্পাদক সালেহ আহমদ শাহিনের সঞ্চালনায় উদ্বোধনী অনুষ্টানে প্রদান অতিথি হিসেবে উপস্হিত ছিলেন সিলেট জেলা ক্রীড়া সংস্হার সাধারণ সম্পাদক মাহী উদ্দিন আহমদ সেলিম, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্হিত ছিলেন বিয়ানীবাজার উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জামাল হোসেন, বিয়ানীবাজার উপজেলা ক্রীড়া সংস্হার সাধারণ সম্পাদক ইসলাম উদ্দিন, পিএইচজি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল হাসিব জীবন, বিয়ানীবাজার উপজেলা ব্যাডমিন্টন এসোসিয়েশনের সভাপতি এবাদ আহমদ, বিয়ানীবাজার ক্রিকেট লিগ-বিসিএলের স্পন্সর ডিরেক্টর, যুক্তরাজ্য প্রবাসী সাইফুল ইসলাম, সিলেট ক্লেমন সুরমা ক্রিকেট একাডেমীর সহকারি কোচ আকরাম ও অনিক।

এ ছাড়াও আরো উপস্হিত ছিলেন এ আর আনিস, জহির উদ্দিন, জাবেদ আহমদ, মাসুম আহমদ, ফারুক আহমদ, এনাম উদ্দিন এনু, আসাদুজ্জামান মিশু, জুনেদ খাঁন, মখলিছুর রহমান ছোটন, আব্দুল আহাদ শাহ, রাশেদ আহমদ, ওয়াহিদুল ইসলাম, আমিনুল ইসলাম শিপলু, আব্দুস সামাদ, এহসানুল ইসলাম, ইফতেখার আহমেদ সাহান, জাবের মাহমুদ তাপাদার, রাজেল আহমদ, খন্দকার লোকমান, রায়হান খাঁন, রাইসুল ইসলাম, জাহিদ হাসান প্রমূখ।

উল্লেখ্য, কোয়াব বিয়ানীবাজারের ক্রিকেট একাডেমির অনুশীলন কার্যক্রম শুরু হবে আগামি ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০ থেকে। জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক ও বঙ্গবন্ধু বিপিএলের চ্যাম্পিয়ন দল রাজশাহী রয়্যালসের কোচ রাজিন সালেহ একাডেমির প্রধান কোচ ও জাতীয় দলের সাবেক ফাষ্ট বোলার, সিলেট বিভাগীয় দলের বোলিং কোচ নাজমুল হোসেন, ক্লেমন সিলেট সুরমা ক্রিকেট একাডেমীর সহকারি কোচ আকরাম ও অনিক সহকারি কোচ হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন।

একাডেমির জন্য বিয়ানীবাজার, গোলাপগঞ্জ ও বড়লেখা উপজেলার বিভিন্ন এলাকার ১২০ জন আবেদনকারি থেকে বাঁছাইয়ের মাধ্যমে প্রতিভাবান ৬০ জন ক্রিকেটারদের নিয়ে সপ্তাহের দুইদিন (বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার ) দুপুর ২:৪৫ হতে বিকাল ৫:০০ ঘটিকা পর্যন্ত ওসমানী স্টেডিয়াম সুপাতলা মাঠে অনুশীলন কার্যক্রম পরিচালিত হবে।

 




Developed by :