Friday, 24 January, 2020 খ্রীষ্টাব্দ | ১১ মাঘ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |




জেলা আ’লীগের বিশেষ সভা অনুষ্ঠিত

দলীয় কর্মসূচিতে নেতাকর্মীর উপস্থিতি কামনা

বঙ্গবন্ধুর প্রকৃত সৈনিকদের দিয়ে কমিটি গঠন করা হবে

সিলেট: সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের বিশেষ প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাতটায় জেলা পরিষদ কনফারেন্স হলে শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস ও মহান বিজয় দিবস যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনে কর্মসূচি গ্রহণ এবং কেন্দ্রীয় আ’লীগের সম্মেলন নিয়ে এ প্রস্তুতি সভা হয়। এতে বিগত কমিটির বেশিরভাগ দায়িত্বশীল উপস্থিত ছিলেন।

সভায় সকলের মতামত নিয়ে বঙ্গবন্ধুপ্রেমিক সৈনিকদের দিয়ে আ’লীগের কমিটি গঠন করা হবে বলেও নতুন দায়িত্বপ্রাপ্ত দু’নেতা মন্তব্য করেন। এ সময় করতালি দিয়ে তাদের উদ্যোগকে স্বাগত জানানো হয়। তারা দলীয় কর্মসূচিতে নেতাকর্মীদের উপস্থিতি কামনা করেন৷

জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট লুৎফুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন খানের পরিচালনায় সভায় সম্মানীত অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি ও উপদেষ্টামন্ডলীর সভাপতি আলহাজ শামছ উদ্দিন খান।

সভাপতির বক্তব্যে লুৎফুর রহমান বলেন, আমরা বিগত সময়ে অত্যন্ত সৌহার্দ্যপূর্ণভাবে মিলেমিশে দলীয় কর্মসূচি পালন করেছি। আমার মতামত নিয়ে সাধারণ সম্পাদক শফিকুর রহমান সুন্দরভাবে দলকে পরিচালনা করেছেন। এজন্য আমাদের মধ্যে কোন হিংস্বা-বিদ্বেষ ছিলনা। বর্তমান সাধারণ সম্পাদক নাসির খান বড়মনের অত্যন্ত ভালো মানুষ উল্লেখ করে বলেন, আমরা দু’জনে মিলে নতুন-পুরাতনদের দিয়ে শক্তিশালী কমিটি গঠন করতে পারবো।

শামছ উদ্দিন খান বলেন, দেশ ও জাতিকে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছাতে হলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকারের কোন বিকল্প নেই। এজন্য ঐক্যবদ্ধভাবে দলকে পরিচালনা করে নেতাকর্মীদের উন্নয়ন সহযোগি হিসেবে গড়তে হবে। তিনি বর্তমান নেতৃত্বের সফলতা কামনা করে দলের যেকোন প্রয়োজনে সহযোগিতার ঘোষণা দেন।

সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নাসির খান বলেন, আমাদের মধ্যে ভ্রাতৃত্ববোধ ও শ্রদ্ধাপূর্ণ সম্পর্ক রয়েছে। বঙ্গবন্ধুকন্যা আমাদের ওপর যে দায়িত্ব দিয়েছেন তা দলকে শক্তিশালী, গতিশীল ও ঢেলে সাজাতে সবাইকে নিয়ে নিষ্ঠার সাথে কাজ করবো। তিনি বলেন, কেন্দ্রীয় আ’লীগের নির্দেশনা অনুযায়ী কাজ শুরু করেছি। আশা করি জাতীয় সম্মেলনের পরে নবীন-প্রবীণের সমন্বয় ঘটিয়ে আমরা একটি সুন্দর কমিটি নেতাকর্মীদের উপহার দিতে পারবো। তিনি পূর্ণাঙ্গ কমিটির পূর্বে দলীয় কর্মসূচিতে সবাইকে অংশগ্রহণের আহ্বান জানান।

সাবেক সাধারণ সম্পাদক শফিক চৌধুরী বলেন, প্রধানমন্ত্রীর হাতকে শক্তিশালী করতে অতীতের ন্যায় আগামীতেও কাজ করবো। দলের প্রয়োজনে পূর্ব অভিজ্ঞতা দিয়েই আ’লীগের অগ্রযাত্রায় অবদান রাখবেন বলেও ঘোষণা দেন তিনি।

দলের গুরুত্বপূর্ণ এ সভায় উপস্থিত ছিলেন ও বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামী লীগের সদ্য সাবেক কমিটির সাধারণ সম্পাদক আলহাজ শফিকুর রহমান চৌধুরী, সহ সভাপতি আলহাজ আশফাক আহমদ, যুগ্ম সাধারণ অ্যাডভোকেট নিজাম উদ্দিন ও অধ্যক্ষ সুজাত আলী রফিক, অ্যাডভোকেট শাহ মোশাহিদ আলী, সাংগঠনিক সম্পাদক হুমায়ুন ইসলাম কামাল ও মোহাম্মদ আলী দুলাল, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক সাদ উদ্দিন আহমদ, ফারুক আহমদ, এমাদ উদ্দিন মানিক, নুরুল আমীন, পীর এপতার হোসেন, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক কবির উদ্দিন আহমদ, দপ্তর সম্পাদক সাইফুল ইসলাম রুহেল, উপ দপ্তর সম্পাদক জগলু চৌধুরী, প্রচার সম্পাদক অ্যাডভোকেট মাহফুজুর রহমান মাহফুজ, যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাাদক অ্যাডভোকেট রণজিত সরকার, স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. আরমান আহমদ শিপলু, অ্যাডভোকেট ইশতিয়াক আহমদ চৌধুরী, সাবেক কার্যকরি সদস্য অধ্যক্ষ শামছুল ইসলাম, অ্যাডভোকেট আজমল আলী ও সৈয়দ মিছবাহ উদ্দিন প্রমুখ।

 





সর্বশেষ সংবাদ

Developed by :