Monday, 15 July, 2019 খ্রীষ্টাব্দ | ৩১ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |




জৈন্তাপুরে কিশোরীর আত্মহত্যা নিয়ে এলাকায় মিশ্র প্রতিক্রিয়া

জৈন্তাপুর: জৈন্তাপুরে এক কিশোরীর আত্মহত্যা নিয়ে এলাকায় দেখা দিয়েছে মিশ্র প্রতিক্রিয়া। এলাকাবাসীর দাবি এটি একটি পরিকল্পিত হত্যা। পরিবারের দাবি অভিমান করে আত্মহত্যা করেছে। জৈন্তাপুর থানায় অপমৃত্যু মামলা রেকড, লাশ মর্গে প্রেরণ।

জানা যায়, জৈন্তাপুর উপজেলার নিজপাট ইউনিয়নের কমলাবাড়ী মোকামটিলা গ্রামের সৎ বাবার সাথে বসবাস করে আসছে মৃত আব্দুল্লাহ মিয়ার মেয়ে সুলতানা বেগম (১২)।

সোমবার সকাল ৮টার দিকে বাড়া বাড়ীতে ঘরের টিনের চালের বর্গার সাথে ওড়না জড়িয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করে। বাড়ীর মালিক বিষয়টি আশপাশের লোকজনকে অবহিত করে। বিষয়টি দেখে পুলিশকে জানালে জৈন্তাপুর মডেল থানার এস.আই প্রদীপ কুমার রায় ঘটনাস্থল হতে নিহতের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করে অধিকত্বর তদন্তের জন্য সিলেট ওসমানি মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

এলাকাবাসী সূত্রে আরও জানা যায়, সুলতানা পিতার মৃত্যুর পর তার মায়ের দ্বিতীয় বিয়ে হয় সেলিম উদ্দিনের সাথে। বিয়ের পর সুলতানার মা কে বিদেশ পাটিয়ে দেয় সেলিম উদ্দিন, এর পর থেকে সুলতানাকে নিয়ে সেলিম উদ্দিন বিভিন্ন জায়গায় বাসা ভাড়া রেখে বসবাস করে আসছে। সর্বশেষ মোকাম টিলার রঙ্গন বিবির বাড়ীতে ভাড়া নিয়ে থাকা অবস্থায় সুলতানা গলায় উড়না পেচিয়ে আত্মহত্যা করে।

এ বিষয়ে জৈন্তাপুর মডেল থানার এস.আই প্রদীপ কুমার রায় বলেন, সংবাদ পেয়ে সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে লাশ উদ্ধার করি। সুরতহাল রির্পোট তৈরী করে অধিকত্বর তদন্তের জন্য সিলেট এমএজি ওসমানি হাসপাতালে প্রেরণ করি। প্রাথমিক ভাবে আত্মহত্যা বলে মনে হচ্ছে। থানায় অপমৃত্যু মামলা রেকর্ড করা হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে কোন অভিযোগ আসলে তদন্ত করে পরবর্তী আইনি ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

 





সর্বশেষ সংবাদ

Developed by :