Wednesday, 22 May, 2019 খ্রীষ্টাব্দ | ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ |




‘আপা আমি ব্যর্থ, আমাকে ক্ষমা করে দিয়েন’

বিয়ানীবাজারবার্তা২৪.কম।।

নানা সমালোচনার মধ্য দিয়ে সম্পন্ন হয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডাকসু নির্বাচন। নির্বাচনে ভিপি পদে ছাত্রলীগের হার নিয়ে চলছে নানান আলোচনা।

এর মধ্যেই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে ক্ষমা চাইলেন ঢাবি ছাত্রলীগ শাখার সভাপতি সনজিত চন্দ্র দাস। ফেসবুকে দেওয়া এক স্ট্যাটাসে তিনি লিখেছেন, আপা আমি ব্যর্থ, আমাকে ক্ষমা করে দিয়েন।



এদিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনে ভিপি পদে জয়ী নুরুল হক নুরকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন ছাত্রলীগের সভাপতি ও ভিপি পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতাকারী রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন।



মঙ্গলবার টিএসসিতে গিয়ে তিনি নুরের সঙ্গে কোলাকুলি করেন এবং একসঙ্গে কাজ করার অঙ্গীকার করেন। এ সময় তিনি ছাত্রলীগের আন্দোলন প্রত্যাহার করেন। একইসঙ্গে ক্লাস পরীক্ষা বর্জনের কর্মসূচিও প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন নুর।



এ সময় শোভন সাংবাদিকদের বলেন, নুরকে ভিপি হিসেবে মেনে নিয়েছেন তারা। ছাত্রলীগ সবাইকে নিয়ে কাজ করবে বলে ঘোষণা দেন তিনি। শোভন বলেন, ভোটাররা ভিপি পদে নুরুল হক নুরকে বেছে নিয়েছেন। তাদের রায়ের প্রতি আমি সম্মান জানাচ্ছি। তার সঙ্গে আছি, তাকে নিয়েই শিক্ষার্থীদের যে কোনো অধিকার আদায়ে কাজ করব।



শোভন বলেন, নুর ডাকসুর ভিপি। তিনি কোনো দলের নয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সব শিক্ষার্থীর ভিপি তিনি। তাকে সবাই সহযোগীতা করতে হবে। শিক্ষার্থীদের অধিকার আদায়ে তার পাশেই থাকবে ছাত্রলীগ।



তিনি বলেন, ছাত্রলীগ দেশের সবচেয়ে বড় সংগঠন। আমরা বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ নষ্ট করতে চাই না। ডাকসু নির্বাচন যারা পরিচালনা করেছেন, তারা আমাদেরই শিক্ষক। তাদের প্রতি সম্মান দেখিয়ে আমি আমার পরাজয় মেনে নিচ্ছি।



তারা যে সিদ্ধান্ত দিয়েছেন, মাথা পেতে নিচ্ছি।






















 

Developed by :